ডোমেইন নেম কী? ডোমেইন কেন প্রয়োজন?

ডোমেইন নেম কী? ডোমেইন কেন প্রয়োজন?

আমাদের মধ্যে অনেকেই ডোমেইন নেম কী, এটা কেন ব্যবহার করা হয়, এটার প্রয়োজনীয়তা কী; কিছুই জানি না! তো, আজকের পোস্টে আমরা জানার চেষ্টা করব- ডোমেইন নেম কী এবং এটি কেন প্রয়োজন?

ডোমেইন নেম কী ?

শুরুতেই আমরা ডোমেইন নেম কী সেটা জেনে নিই। আমরা যখন কোনো ওয়েবসাইটে ভিজিট করি, প্রত্যেকটা ওয়েবসাইটের একটা লিংক / ইউআরএল / ওয়েব অ্যাড্রেস থাকে। যেমন আপনি এখন এই পোস্টটা পড়ছেন, ওপরে আপনার ব্রাউজারের অ্যাড্রেস বারে দেখেন আমাদের- ‘www.techbiggan.com‘ লিংক কিংবা ইউআরএলটা দেখতে পাচ্ছেন। এটাই আসলে ডোমেইন নেম। মূলত কোনো ওয়েবসাইটের লিংক বা ওয়েব অ্যাড্রেস বা ইউআরএলটাকে ডোমেইন নেম বলা হয়।

আমাদের সাইটের মতোই আপনি যখন ফেসবুক ভিজিট করেন, তখন নিশ্চয় খেয়াল করেছেন, ব্রাউজারে আপনাকে একটা অ্যাড্রেস লিখতে হয়। এই facebook.com হচ্ছে ফেসবুকের অ্যাড্রেস। একইভাবে techbiggan.com হলো আমাদের সাইটের অ্যাড্রেস। biggannews.com অন্য একটি সাইটের অ্যাড্রেস। এখানে facebook.com , techbiggan.com , biggannews.com এগুলো সবগুলোই হচ্ছে একেকটা ডোমেইন নেম, যেখানে www. অংশটা হচ্ছে ডোমেইন প্রেফিক্স আর  .com অংশটা মূলত ডোমেইন সাফিক্স বা এক্সটেনশন।  ডট কমের মতো আরও শত শত ডোমেইন সাফিক্স বা এক্সটেনশন আছে ইন্টারনেট জগতে। এর মধ্যে .com ছাড়াও বেশ কিছু জনপ্রিয় ডোমেইন সাফিক্স/এক্সটেনশন হলো-  .net .org .info .gov .de .cn .uk .nl .eu .ru প্রভৃতি। এর মধ্যে অনেকগুলো কান্ট্রি বেস এক্সটেনশন। মজার ব্যাপার হলো, আমাদের বাংলাদেশের জন্যেও ২টা ডোমেইন এক্সটেনশন আছে- .bd ও .বাংলা।

এরপর মাঝে মাঝে আমরা এধরনের কিছু ডোমেইন দেখি-  m.facebook.com / en.biggannews.com.  এই ডোমেইন নেমগুলোর মধ্যে m আর en হচ্ছে সাব-ডোমেইন। মূল বা প্যারেন্ট ডোমেইন নেমের আগে এরকম কিছু দেখলেই বুঝে নেবেন ওটা সাব-ডোমেইন!

ইন্টারনেটে যত ওয়েব অ্যাড্রেস আছে, সকল অ্যাড্রেসমূহ ইউআরএল (URL – Uniform Resource Locator) হিসেবে পরিচিত। সহজ কথায় বলতে গেলে, ডোমেইন নেম হলো একটা ওয়েবসাইটের নাম বা পরিচিতি বা ঠিকানা।

ডোমেইন কেন প্রয়োজন ?

ডোমেইন নেম কী সেটা তো জানা হলো, কিন্তু এই ডোমেইন নেম কেন প্রয়োজন- তা কি আমরা জানি? যেকোনো ধরনের অনলাইনের কাজ কিংবা ব্যবসার পূর্বশর্ত হলো আপনার একটা ওয়েবসাইট থাকা জরুরি। [বর্তমানে পৃথিবীতে বিলিয়ন বিলিয়ন ওয়েবসাইট আছে! প্রতিটি মানুষের মাথাপিছু ৭টা করে ওয়েবসাইট আছে! আর এই সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে! বর্তমান ডিজিটালাইজেশনের যুগে ই-কমার্স বিজনেস, সার্ভিসিং, ফ্রিল্যান্সিং কিংবা যেকোনো অফলাইন বিজনেসের জন্যই একটা ওয়েবসাইট থাকা আবশ্যকীয়। আপনার নিজের কেন একটি ওয়েবসাইট থাকা প্রয়োজন তা জানতে এই ভিডিওটি দেখতে পারেন ]  আর ওয়েবসাইটের কথা আসলেই শুরুতে চলে আসে ডোমেইনের কথা! কারণ ডোমেইন ছাড়া কোনো ওয়েবসাইট কল্পনাও করা যায় না! কোনো ওয়েবসাইট তৈরি করে চাইলে, শুরুতেই আপনাকে একটা ডোমেইন নেম নির্বাচন করতে হবে! এরপর ভালো কোনো রেজিস্ট্রার কোম্পানি থেকে সেই ডোমেইনটি রেজিস্ট্রেশন করে নিতে হবে! এরপরেই আপনি সেই ডোমেইনের আন্ডারে ওয়েবসাইট  তৈরি করা শুরু করতে পারবেন! যেমন- আমাদের এই সাইটটি বানানোর আগে, রিসার্চ করে আমরা techbiggan.com ডোমেইনটি সিলেক্ট করেছি এবং রেজিস্ট্রেশন করেছি।

শুধু নিজের ব্যবসা-নিজের ওয়েবসাইটের জন্য সবাই ডোমেইন কিনে বা রেজিস্ট্রেশন করে, এমন কিন্তু না! অনেকেই আছে, যারা রিসার্চ করে ভালো ভালো ডোমেইন কিনে রাখে রেগুলার প্রাইসে। এরপর বড়ো বড়ো কোম্পানির কাছে সেগুলো বিশাল অঙ্কের টাকায় রিসেল করে দেয়! এই কাজটাকে বলে ডোমেইন ফ্লিপ্পিং! ডোমেইন ফ্লিপ্পিং সম্পর্কে পরে আমরা এই সাইটে বিস্তারিত একটা পোস্ট দেবো! এখন পর্যন্ত বিক্রিত একটা ডোমেইন সর্বোচ্চ দাম প্রায় ৫০ মিলিয়ন ডলার!!!

আপনারা যদি ডোমেইন কিনতে চান, দেশি-বিদেশি অনেক রেজিস্ট্রার কোম্পানি থেকে রেগুলার প্রাইসে ডোমেইন কিনতে পারবেন। সবচেয়ে পপুলার ডট কম ডোমেইনের রেগুলার প্রাইস ৭০০-১২০০ টাকা বা ৬-১২ ডলার। তবে বাংলাদেশে অনেক অসাধু কোম্পানি বিভিন্ন অফারের অ্যাবিউজ করে ২০০-৩০০ টাকায় ডট কম ডোমেইন রিসেল করে! কিন্তু আসল রেজিস্ট্রার কোম্পানি ধরতে পারলে, এসব ডোমেইন সাসপেন্ড করে দেয়! তাই সস্তা নিতে গিয়ে ধরা খাবেন না! ডোমেইন কেনার জন্য দেশি-বিদেশি এই কোম্পানিগুলো ব্যবহার করতে পারেন:

  • EBN Host [দেশি। বিকাশ/রকেট পেমেন্ট সিস্টেম রয়েছে]
  • Porkbun [বিদেশি। পেমেন্ট সিস্টেম- মাস্টার কার্ড, ক্রিপ্টোকারেন্সি, পেপাল]
  • NameCheap [বিদেশি। পেমেন্ট সিস্টেম- পেপাল, মাস্টার কার্ড]

আজকের পোস্ট এই পর্যন্ত। আগামী পোস্টে আমরা হোস্টিং সম্পর্কে জানব। সেই পোস্ট সবার আগে পড়তে চাইলে টেকবিজ্ঞান সাইটে চোখ রাখুন।

আরও পড়ুন: গুগল অ্যাডসেন্সের সেরা ১০ টি বিকল্প! 

About Abul Hasnat Badhon

কবি, লেখক, বিজ্ঞান-প্রযুক্তি সাংবাদিক ও ফ্রিল্যান্সার [এসইও এক্সপার্ট, ওয়ার্ডপ্রেস কাস্টমাইজার ও ডিজিটাল মার্কেটার]! দীর্ঘদিন যাবত চট্টগ্রামের অনলাইন নিউজ পোর্টাল সন্দেশ২৪ এর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের সম্পাদক হিসেবে কাজ করেছি। এ ছাড়া বিভিন্ন সাইটে ফ্রিল্যান্স আর্টিকেল রাইটার হিসেবে কাজ করেছি! বর্তমানে আমার নিজের ওয়েবসাইট- বিজ্ঞান বিষয়ক নিউজ পোর্টাল www.biggannews.com ও গল্প বিষয়ক পোর্টাল www.golpiyan.com এর প্রধান সম্পাদক হিসেবে কাজ করছি! পড়াশোনা করছি- 'জীব-প্রযুক্তি ও জিন প্রকৌশল' বিষয়ে, স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষ! বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সেক্টরের মানুষ হলেও আমার নাড়ি সাহিত্যের সাথে বাঁধা! তাই বইপড়া ও লেখালিখিই আমার প্রিয় শখ! ২০১৭ ও ২০১৮ বই মেলাতে আমার সম্পাদনায় প্রকাশিত হয়েছে ২টি কাব্যগ্রন্থ ও ২টি গল্প গ্রন্থ! নিজে পছন্দের কাজগুলোর মধ্যেই সব সময় বেঁচে থাকতে চাই!

View all posts by Abul Hasnat Badhon →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 − two =